যে বয়সে শি’শুরা স্কুলে যাওয়া শুরু করে; ঠিক সে সময়েই অ’ভিনয়ে নাম লেখান দীঘি। একটি বিজ্ঞাপনে কাজ করে ছোট থাকতেই তারকা খ্যাতি পান তিনি।এরপর অনেক ছবিতে অ’ভিনয় করে তারকাশিল্পীতে পরিণত হন দীঘি। এরপর ২০১২ সাল থেকে দীর্ঘ সময় অ’ভিনয়ে বিরতি দিয়েছিলেন তিনি। এ সময়টায় শুধু পড়ালেখা নিয়েই ব্যস্ত ছিলেন।এখন দীঘি আর শি’শুশিল্পী নয়, বয়সও বেড়েছে আর সেই সঙ্গে শি’শুশিল্পীর তকমা’ও মুছে ফেলেছেন। পুরোদস্তুর একজন চিত্রনায়িকা হিসেবে নতুন অ’ভিযাত্রা শুরু করেছেন চিত্রজগতে।এরই মধ্যে একাধিক নতুন ছবিতে চুক্তিবদ্ধও হয়েছেন দীঘি। একটি ছবির কাজও শেষ করেছেন। এটির নাম ‘টুঙ্গিপাড়ার মিয়া ভাই’। পরিচালনা করেছেন শামীম আহমেদ রনি। এ ছবিতে দীঘি বেগম শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিবের চরিত্রে অ’ভিনয় করেছেন।এতে অ’ভিনয় প্রসঙ্গে দীঘি বলেন, এ চরিত্রে অ’ভিনয়ের আগে অনেক টেনশনে ছিলাম যে চরিত্রটি ফুটিয়ে তুলতে পারব কিনা। তবে পরিচালক রনি ভাই ও আমা’র বাবা সহযোগিতা করায় কাজটি সহ’জেই শেষ করতে পেরেছি। তবে কেমন অ’ভিনয় করেছি, তা এখনই বলতে পারব না। দর্শক বিচার করবেন এ কাজটির সফলতা ও ব্যর্থতার।এদিকে আগামী মাসে আরও দুটি ছবির কাজ শুরু করবেন দীঘি। এগুলো হল- দেলোয়ার জাহান ঝন্টুর পরিচালনায় ‘তুমি আছ তুমি নেই’ এবং কাজী হায়াতের পরিচালনায় ‘যোগ্য সন্তান’ ছবি দুটি।আগামীকাল সোমবার দীঘির জন্ম’দিন। জন্ম’দিনকে ঘিরে বিশেষ কোনো আয়োজন নেই। তবে দীঘি জানান, দুপুরে শুধু বন্ধুদের সঙ্গে সময় কা’টাবেন তিনি। দীঘি তার বাবা অ’ভিনেতা সুব্রতের নির্দেশনায় ক্যারিয়ার এগিয়ে নেয়ার পরিকল্পনা করছেন।এছাড়া তার মা প্রয়াত চিত্রনায়িকা দোয়েলের স্বপ্ন পূরণ করতে নিজেকে একজন ভালো অ’ভিনেত্রী হিসেবেই প্রতিষ্ঠিত করার স্বপ্ন নিয়ে নতুনভাবে চিত্রজগতে কাজ শুরু করেছেন এই অ’ভিনেত্রী।

Comments

comments