হাইলাইটসপুজো প্রায় দোরগোড়ায়। কিন্তু পুজোয় জামাকাপড়ই তো আর শেষ কথা নয়! রয়েছে সাজগোজও। নিজেকে সুন্দর করে তুলতে নারী-পুরুষ নির্বিশেষ চুলের যত্ন অন্যতম। পুজোর মধ্যেও তাই সব সাজের অন্যতম হল চুলের সাজসজ্জা (hairstyle)। এই সময় ডিজিটাল ডেস্ক: পুজো প্রায় দোরগোড়ায়। কিন্তু পুজোয় জামাকাপড়ই তো আর শেষ কথা নয়! রয়েছে সাজগোজও। নিজেকে সুন্দর করে তুলতে নারী-পুরুষ নির্বিশেষ চুলের যত্ন অন্যতম। পুজোর মধ্যেও তাই সব সাজের অন্যতম হল চুলের সাজসজ্জা (hairstyle)। তাই চুলের ভাবনা শেষ মুহূর্তের জন্য ফেলে রাখাটা বোকামি হবে। এখন থেকেই চিন্তা-ভাবনা শুরু করে দিন। মাথায় রাখুন, কেশসজ্জা (hairstyle) হতে হবে পোশাকের মানানসই।তবে এটা তো ঠিক গরমের সময়ে খোলা চুলের স্টাইলও খুব একটা আরামদায়ক নয়। এমন হেয়ার স্টাইল দরকার, যাতে আরামের সঙ্গে কম্প্রোমাইজ না করে নতুন নতুন হেয়ারস্টাইল (hairstyle) করা যায়। খোঁপা বঙ্গ ললনার কাছে ইদানিং এই স্টাইল বেশ জনপ্রিয় হয়েছে খোঁপা। এবার পুজোর হেয়ার স্টাইলে সবচেয়ে আকর্ষণীয় হতে চলেছে এই ভাবে চুল বাঁধা। অনেকেই বলবে ওল্ড ইস গোল্ড৷ পুরনো স্টাইল বারবার ফিরে ফিরে আসে। আসলে ফিরে তখনই আসে, যখন নতুনদের মধ্যে প্রচলন হতে থাকে। আলিয়া ভাট, দীপিকা পাডুকোন-সহ বহু নায়িকাই ফিরিয়ে এনেছে পুরনো স্টাইল। একটু উঁচুতে কপালে টিপ আর পাফ করে বা বল খোপায় মুখটা ভরাট লাগে। সঙ্গে শাড়ি বা চুড়িদার, যে কোনোটাই মানানসই। এবার পুজোর এটাই স্টাইল। খাঁটি বাঙালি ধাঁচে শাড়ি আর পাফ করে চুল বেঁধে হালকা জুয়েলারিতে ছিমছাম বাঙালি লুক এবার পুজোয় নজর কাড়বে। ক্রেজ বলছে এবার পুজোয় মার্কেট হট পাফ আর খোঁপায়। ৬০ এর সাদা-কালো নায়িকার স্টাইলেই মন্ডপের হার্ট থ্রবের গ্ল্যমার বাড়তে চলেছে। শাড়ির জন্য এটি হায়ার স্টাইলের সেরা। বাড়িতে অতিথি এলে একটু অন্যরকমভাবে সাজ-গোজ করতেই পারেন। সবশেষে ফুল দিয়ে দিলেই খুলে যাবে আপনার সাজ। সাইড ব্রেইড ছুটির দিনে ফুরফুরে মেজাজে লং ড্রাইভের জন্য তৈরি? চুলের স্টাইলে একটা বোহেমিয়ান লুক আনা যাক তাহলে। ব্রেইড এখন হেয়ার স্টাইল হিসেবে ট্রেন্ডি। তাই ক্যাজুয়াল পোশাকের সঙ্গে সাইড ব্রেইড করে নিন। লম্বা চুলে স্বচ্ছন্দ এবং খুব বেশি এক্সপেরিমেন্ট না করতে চাইলে দিব্যি কাজ চালিয়ে নিতে পারেন। গোড়া থেকে আলগা বিনুনি, একেবারে নীচে পর্যন্ত। চাইলে মাথার মাঝখান থেকেও বিনুনি করা যায়। তবে এটি খাঁটি ভারতীয় লুক। জিন্সের সঙ্গে তো যায়ই না। ফিউশন কুর্তির সঙ্গেও বিনুনি না করাই ভাল।এলিগেন্ট ব্রেইড চুল খোলা রাখতে চান অথচ চান না জট না পড়ুক। তাহলে এলিগেন্ট ব্রেইড করতে পারেন। মাথার দু’পাশ থেকে এক গোছা করে চুল নিন। বিনুনি করে পিছনের দিকে নিয়ে যান। একটা ক্লিপ বা কিছু দিয়ে আটকে দিন। নীচের চুল খোলাই থাকবে। লো রোলড বান এই hairstyle মহিলাদের দুর্দান্ত দেখায়। আপনার কপাল দিয়ে বান তৈরি করুন এবং তারপরে বাকী অংশটি ভাঁজ করুন। আপনার যদি এই হেয়ারস্টাইলটি তৈরি করতে সমস্যা হয় তবে ইউটিউবের সাহায্য নিন। ব্রেডেড বানস্টাইলিং টিপসলম্বা চুলের ক্ষেত্রে অনায়াসেই সাইড ব্রেডেড হেয়ার স্টাইলটি ফলো করা যেতে পারে, স্টাইলটি রপ্ত করা অত্যন্ত সহজ এবং কম সময়েই পুরো বিষয়টি ম্যানেজ করে নেওয়া যাবে, আর পুরো ব্যাপারটার মধ্যেই রয়েছে একধরনের ট্রেন্ডি লুকের ছাপ… কাজেই পার্টি হোক কিংবা ক্রিসমাস, এই স্টাইলটি অনায়াসেই করে নিতে পার।এই সময় ডিজিটালের লাইফস্টাইল সংক্রান্ত সব আপডেট এখন টেলিগ্রামে। সাবস্ক্রাইব করতে ক্লিক করুন এখানে।

Source link

Comments

comments